Don't Miss
হোম / খেলাধুলা / ফাইনালে ভারত বাংলাদেশকে ‘তমিজ’ শেখাবে!

ফাইনালে ভারত বাংলাদেশকে ‘তমিজ’ শেখাবে!

ফাইনালে ভারত বাংলাদেশকে তমিজ শেখাবে

  • সাকিব-তামিমদের বেতমিজ বলছে হিন্দি চ্যানেল ‘আজতক’।
  • তারা বলছে, আজ ফাইনালে ভারত বাংলাদেশকে ‘তমিজ’ শেখাবে।
  • ফাইনালের পর বাংলাদেশের ঔদ্ধত্য ভেঙে চুরমার হয়ে যাবে বলে মন্তব্য তাদের।
  • বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের ক্রিকেটীয় চেতনা নিয়েও সংশয় ‘আজতকে’র।

বাংলাদেশ-ভারত ম্যাচ মানেই উত্তেজনা। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে কথার লড়াই। অনেক সময় ভব্যতার মাত্রা ছাড়িয়ে যাওয়া। এই দুই দলের সমর্থকদের অতি আবেগ অনেক সময়ই হিংসা-বিদ্বেষের জন্ম দেয়। কিন্তু এবার বাংলাদেশ ক্রিকেট দলকে নিয়ে সংবাদ পরিবেশন করতে গিয়ে ভদ্রতার মাত্রা ছাড়িয়েছে গুটি কয়েক ভারতীয় গণমাধ্যম। হিন্দি সংবাদ চ্যানেল ‘আজতক’ যেমন নিদাহাস ট্রফির ফাইনালের প্রিভিউ করতে গিয়ে বলেছে, আজকের ফাইনালে রোহিত শর্মার দল বাংলাদেশকে ‘তমিজ’ শেখাবে।

‘আজতকে’র ম্যাচ প্রিভিউয়ের ভাষা ছিল হিন্দি। বাংলা অনুবাদ করলে অনেকটা এমনই দাঁড়ায়, ‘শুক্রবারের ম্যাচে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের আচরণ নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। আম্পায়াররা ‘নো বল’ না দেওয়ায় বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা চূড়ান্ত “বেতমিজি” করেছে।’ বাংলাদেশ ক্রিকেটীয় ভব্যতা মানেনি, আদবকায়দা শেখানো দরকার—এমন উসকানিমূলক কথা সরাসরি বলেছে চ্যানেলটি।

ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে এখন পর্যন্ত বাংলাদেশ একবারও জিততে পারেনি। প্রতিবেদনজুড়ে এই তথ্য বারবার উঠে এসেছে। কিন্তু আজতক বলেছে, ‘ফাইনালে বাংলাদেশকে হারিয়ে ভারত তাদের ক্রিকেটারদের বেয়াদবির চূড়ান্ত জবাব দেবে। বাংলাদেশের ঔদ্ধত্য ভেঙে চুরমার হয়ে যাবে।’

বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের ‘ক্রিকেটীয় চেতনাবোধ’ নিয়েও প্রশ্ন তুলেছে তারা, ‘নো বল নিয়ে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের বেয়াদবি মাত্রা ছাড়িয়ে গিয়েছিল। এটি ক্রিকেটীয় চেতনাবোধকে আঘাত করেছে।’

গণমাধ্যমটির মতে, ভারতই নাকি বাংলাদেশকে ‘সংশোধন’ করতে পারে, ‘এরা (বাংলাদেশ ক্রিকেট দল) এত সহজে শোধরাবে না। সেটা করবে ভারতীয় দল।’

একটা জায়গায় বাংলাদেশ দলকে হুমকিও দিয়েছে তারা, ‘ফাইনালে যদি ভুল করেও এমন আচরণ তারা করে, তাহলে দর্শকেরা আন্দাজও করতে পারবেন না, এদের কী হাল করবে রোহিতের দল!’

প্রতিবেদনটির একপর্যায়ে ভারতের সাবেক দুই ক্রিকেটার মদন লাল ও নিখিল চোপড়া ফাইনালের ওপর তাঁদের বিশেষজ্ঞ মতামত দেন। সেখানে আলোচনার একপর্যায়ে ভারতের ‘বিশ্বকাপজয়ী’ ক্রিকেটার মদন লাল সাকিব আল হাসানের নাম নিতে গিয়ে বারবারই তাঁকে ‘সাকাব আলী’ বলেছেন।

উত্তর দিন

মন্তব্য করুন!

  Subscribe  
এর রিপোর্ট করুন